কাল থেকে তিন দিন ব্যাপী হযঃ দরিয়া শাহ(রঃ)সহ ৪ ওলির মাজারের বাৎসরিক উরুস শুরু

প্রকাশিত: ৩:৩১ পূর্বাহ্ণ, মার্চ ২, ২০২০

কাল থেকে তিন দিন ব্যাপী হযঃ দরিয়া শাহ(রঃ)সহ ৪ ওলির মাজারের বাৎসরিক উরুস শুরু

সিলেটের দক্ষিণ সুরমার কদমতলীতে সুরমা নদীর তীঁরে চিরশায়ীত ৩৬০ আউলিয়ার অন্যতম হযরত শাহ্ সামালাল শাহ (রঃ), হযরত আবিদাল শাহ (রহঃ), হযরত রহমত শাহ্(রঃ), হযরত দরিয়া শাহ্(রহঃ) গণের বাৎসরিক তিন দিন ব্যাপী পবিত্র উরুস শরীফ আগামীকাল ৩ মার্চ মঙ্গলবার থেকে শুরু হচ্ছে। প্রতি বছরের মতো এবারো বাংলা মাসের ২০,২১,ও ২২ ফাল্গুন, ৩,৪,৫ মার্চ, মঙ্গলবার, বুধবার ও বৃহস্পতিবার উরুস শরীফ অনুষ্টিত হবে। উরুসের প্রথম দিন ২০ ফাল্গুন ৩ মার্চ মঙ্গলবার বাদ ফজর হতে খতমে কোরআন শরীফ পাঠ, বাদ এশা মিলাদ শরীফ ও দোয়ার পর জীকির আজকার । ২য় দিন ২১ ফাল্গুন ৪ মার্চ বুধবার বাদ ফজর হতে খতমে কোরআন শরীফ, সকাল ১০ টা হতে মাজারে গিলাপ দেওয়া। বাদ জোহর গরু জবেহ্ । বাদ এশা মিলাদ শরীফ ও দোয়ার পর জীকির আজকার। ৩য় দিন ২২ ফাল্গুন ৫ মার্চ বৃহস্পতিবার রাত ৪ টার পর আখেরী মোনাজাত, বাদ ফজর নিয়াজ বিতরণের মাধ্যমে উরুসের সমাপ্তি হবে। পবিত্র উরুসে ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে ভক্তবৃন্দের উপস্থিতি কামনা করেছেন মাজার কমিটির মোতাওয়াল্লী ও সভাপতি হাজী সমরাজ মিয়া ও সেক্রেটারী মঈন উদ্দিন । মাজার কমিটির মোতাওয়াল্লী ও সভাপতি বিশিষ্ট মুরব্বী হাজী সমরাজ মিয়া জানান, উরুসে ব্যাপক নিরাপত্তার পাশাপাশি শান্তি শৃংখলা রক্ষার কাজে এলাকার যুবক থেকে সব বয়সের সাধারণ বাসিন্দারা দায়িত্ব পালন করবেন। এ ছাড়া উরুসে লাউড স্পিকার বাজানো যাবেনা। মহিলাদের জন্য কোনো ব্যবস্থা নেই, সব ধরনের অন্যায় কার্যকলাপ নিষিদ্ধ করা হয়েছে। মাজার কমিটির কোষাধ্যক্ষ সিলেট সিটি কর্পোরেশনের প্যানেল মেয়র (১) ও ২৬ নং ওয়ার্ডের পরপর ২ বারের নির্বাচিত কাউন্সিলর রোটারিয়ান তৌফিক বকস্ লিপন বলেন, ঐতিহ্যবাহী পবিত্র এ উরুস মোবারক যথাযথভাবে পালনের জন্য মাজার এলাকার ভেতর তৈরি করা হয়েছে কাফেলা। মাজারের চারপাশে শান্তি শৃংখলা রক্ষার কাজে আইনশৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরাও নিয়োজিত থাকবেন। এছাড়া দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আশা ভক্ত ও আশেকানদের জন্য বিশেষ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। পবিত্র উরুস শরীফ শান্তিপূর্ণ ও সুষ্টভাবে পালনের জন্য সকলের সহযোগিতা কামনা করেন তিনি। মাজার কমিটির সাধারণ সম্পাদক কুয়েতস্থ সাবেক বাংলাদেশ স্টুডিও’র পরিচালক মঈন উদ্দিন বলেন, কদমতলীর মাটিতে চির শায়ীত ৪ ওলির মাজারের পবিত্রতা রক্ষা করা আমাদের সকলের দায়িত্ব, প্রতি বছর বাংসরিক উরুসে লাখো ভক্ত আশেকানদের মিলনমেলা বসে, উরুস পালনে সকলের সহযোগিতা কামনা করেন তিনি। প্রেস-বিজ্ঞপ্তি।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

Flag Counter

Ad area

 

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com