চুরির দায়ে মানসিক রোগীকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে সভা

প্রকাশিত: ৬:০০ অপরাহ্ণ, মে ৫, ২০১৮

চুরির দায়ে মানসিক রোগীকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে সভা

সিলেটের বিশ্বনাথে অলংকারী ইউনিয়ন পরিষদের টাকা চুরির ঘটনায় নিরিহ মানসিক রোগী ফজর আলীকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে শুক্রবার রাতে আলমনগর গ্রামে এক প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

আলমনগর গ্রামে সাবেক মেম্বার খোয়াজ আলী এর বাড়ীতে অলংকারী ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান ছমছুজ্জামান সমছু মিয়ার সভাপতিত্বে অলংকারী ইউনিয়নের বৃহত্তর ছয়টি গ্রাম (আলমনগর, পিঠাকরা, বেতসান্দি, ছনখাড়িগাঁও, সালামপুর, ঘুরণ) এর পক্ষ থেকে অই প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় বক্তারা ফজর আলীকে গ্রেফতারের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান। তারা বলেন ফজর আলী একজন অসহায় মানসিক রুগী। ফজর আলীর উপর অভিযোগ সম্পুর্ণ মিথ্যা বানোয়াট। ফজর আলীর বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার ও তাঁর নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে এই সভার আয়োজন করা হয়েছে।”

সাবেক মেম্বার খোয়াজ আলী জানান, ফজর আলী একজন মানসিক রুগি। দীর্ঘদিন যাবৎ সে অসুস্থ্য। এই ঘটনাটি একটি সাজানো নাটক। তাকে অভিলম্বে মুক্তি দেওয়া না হলে ইউনিয়নবাসীকে নিয়ে কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে।

সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন অলংকারী ইউপি আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক তফজ্জুল আলী (সাবেক মেম্বার), মর্তুজ আলী (সাবেক মেম্বার), আব্দুল ওদুদ আজাদ (সাবেক মেম্বার), ৬নং ওয়ার্ডের মেম্বার শায়েকুর রহমান, বিশিষ্ট মুরব্বী ফারুক মিয়া (মরিল), তবারক আলী, ময়না মিয়া, মনির মিয়া, গফুর মিয়া, আজম আলী, হামিদ আলী, আবুল হোসেন, আফতাব মিয়া, আব্দুল খালিক, গোলাপ মিয়া, ওলিউর রহমান প্রমুখ।

উল্লেখ্য, গত বছরের আগস্ট মাসের ৩০ তারিখ দিনে শত শত মানুষের উপস্থিতিতে কৃষি ভর্তুকি ও বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে চাল ও টাকা বিতরণের এক পর্যায়ে চেয়ারম্যানের টেবিলের ড্রায়ার থেকে ৪২,৫০০/- টাকা চুরি হয়। প্রথমে ৪নং ওয়ার্ডের গ্রাম পুলিশকে গ্রেফতার করে পুলিশ। চুরির অভিযোগে মামলা হয় আব্দুল মতিনের ওপর। বর্তমানে সে জামিনে আছে। এখন দীর্ঘ প্রায় ৮ মাস পর মানসিক রুগি ফজর আলীকে গ্রেফতার করা হয় অই মামলায়।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  

Flag Counter

আমাদের ভিজিটর সংখ্যা

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com