জাফলংয়ে মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড নেতার মরদেহ উদ্ধার, আটক ৩

প্রকাশিত: ১০:৪৬ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২১, ২০২১

জাফলংয়ে মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড নেতার মরদেহ উদ্ধার, আটক ৩

গোয়াইনঘাট প্রতিনিধি : সিলেটের গোয়াইনঘাট উপজেলার জাফলংয়ের ডাউকি নদী থেকে শফিকুর রহমান নামের স্থানীয় এক মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড নেতার মরদেহ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ।

 

বুধবার (২০ জানুয়ারী) দুপুর সাড়ে ১২টায় জাফলং চা-বাগান সংলগ্ন এলাকার ডাউকি নদী থেকে থানা পুলিশ সদস্যরা তার মরদেহ উদ্ধার করেন।

 

শফিকুর রহমান উপজেলার লাবু উত্তর পাড়া গ্রামের মো: ইব্রাহিম আলীর ছেলে ও বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড ২নং পশ্চিম জাফলং ইউনিয়ন শাখার সাধারণ সম্পাদক।

 

এ বিষয়ে নিহতের বাবা বীর মুক্তিযোদ্ধা ইব্রাহিম আলী বাদী হয়ে ১০-১২ জনকে আসামি করে মঙ্গলবার রাতে গোয়াইনঘাট থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। যার প্রেক্ষিতে অভিযান চালিয়ে মামলার এজাহার নামীয় তিন জনকে আটক করেছে পুলিশ।

 

আটক ব্যক্তিরা হলেন- উপজেলার জাফলং চা বাগানের কেন্দুর ছেলে স্বপন ও চাউরাখেল গ্রামের সংকরের ছেলে অমূল্য এবং নয়াবস্থি গ্রামের করিম মিয়ার ছেলে আব্দুর নূর।

 

স্থানীয় ও থানা পুলিশ সূত্রে জানাযায়, গত সোমবার (১৮ জানুয়ারি) দিবাগত রাতে শফিকুর রহমানসহ কয়েকজন শ্রমিক ডাউকি নদীর জাফলং চা বাগান এলাকায় পাথর উত্তোলন করতে যায়। এ সময় একদল দুর্বৃত্ত তাদের উপর অতর্কিত হামলা চালায়। এ ঘটনায় শফিকুর রহমানের সঙ্গী বাছিরসহ ৫ জন আহতাবস্থায় হামলাকারীদের হাত থেকে দৌড়ে পালিয়ে গিয়ে আত্মরক্ষা করতে পারলেও পানিতে পড়ে মুহুর্তেই তলিয়ে যায় শফিকুর রহমান।

 

নিখোঁজের পর গোয়াইনঘাট থানা পুলিশ ও সিলেট ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি সদস্যরা যৌথভাবে মঙ্গলবার সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত দিনভর চেষ্টা চালিয়ে তার কোন সন্ধান না পেয়ে উদ্ধার অভিযান সমাপ্ত করেন।

 

পরবর্তীতে স্থানীয় লোকজন বুধবার দুপুরে ডাউকি নদীতে শফিকুর রহমানের মরদেহ দেখতে পেয়ে থানা পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে গোয়াইনঘাট থানার এসআই আব্দুল মান্নান ও আবুল হোসেন ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য সিলেট এম.এ.জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেন।

 

শফিকের মৃতদেহ উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করে গোয়াইনঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আব্দুল আহাদ জানান, মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড নেতার মরদেহ উদ্ধারের পাশাপাশি পুলিশ এ ঘটনার সাথে জড়িত এবং মামলার এজাহার নামীয় তিন জনকে আটক করা হয়েছে।

 

তাদের জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে অপরাপর আসামিদের আটকে থানা পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  

Flag Counter

আমাদের ভিজিটর সংখ্যা

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com