তাজমহল হিন্দুদের মন্দির না

প্রকাশিত: ৩:০৫ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ১, ২০১৫

তাজমহল হিন্দুদের মন্দির না

taj

সুরমা মেইল, আন্তর্জাতিক ডেস্ক : তাজমহল হিন্দুদের মন্দির ছিল বলে ভারতের আইনজীবীদের এক দাবিকে প্রত্যাখ্যান করেছে দেশটির সরকার। ভারতের কেন্দ্রীয় সংস্কৃতিমন্ত্রী মহেশ শর্মা বলেছেন, তাজমহল হিন্দু মন্দির ছিল সরকার এ রকম কোনো প্রমাণ পায়নি। সোমবার ভারতীয় সংসদের নিম্নকক্ষ লোকসভায় এ তথ্য জানান তিনি। খবর বিবিসির।

তাজমহলকে হিন্দু মন্দির ঘোষণা এবং সেখানে হিন্দুদের পূজা করার অনুমতি দেয়ার দাবিতে আগ্রা আদালতে গত ২৫ মার্চ হিন্দুত্ববাদীদের পক্ষ থেকে একটি মামলা করা হয়। আগ্রা সিটি সিভিল কোর্টে বিশ্বখ্যাত স্মৃতিসৌধ তাজমহলকে ‘শিব মন্দির’ বলে দাবি করে আরএসএসপন্থী ৬ জন আইনজীবী মামলা দায়ের করেন।

মামলার বাদীদের আইনজীবীদের দাবি, আগ্রায় ভগবান অগ্রেশ্বর মহাদেব নগ্নাথেশ্বর বাস করতেন। সুতরাং এটির রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্ব ভারতের প্রত্নতাত্ত্বিক জরিপ বিভাগের হাত থেকে তাদের (হিন্দু ধর্মাবলম্বী) হাতে দিতে হবে।

আদালতে এ ধরনের বিতর্কিত আবেদন জমা পড়ায় উদ্বেগ প্রকাশ করে দেশটির পর্যটন সংস্থাগুলো। তাদের দাবি, ভারতের সব চেয়ে বড় আকর্ষণ তাজমহল। এটিকে বিতর্কিত করা উচিত নয়। তাজমহলকে যদি বাবরী মসজিদের মত বিতর্কিত করে তোলা হয় তাহলে পর্যটনে এর ক্ষতিকর প্রভাব পড়বে।

মুঘল সম্রাট শাহ জাহান তার তৃতীয় স্ত্রী মমতাজ মহালের মৃত্যুর পর ভালোবাসার নিদর্শন স্বরুপ ১৬৫৩ সালে তাজমহল নির্মাণ করেন। ১৪তম সন্তান জন্ম দিতে গিয়ে মারা যান মমতাজ। ১৯৮৩ সালে ইউনেস্কো তাজমহলকে বিশ্ব ঐতিহ্যবাহী স্থান হিসেবে তালিকাভুক্ত করে। প্রত্যেক দিন গড়ে অন্তত ১২ হাজার দেশি বিদেশি পর্যটক তাজমহল পরিদর্শন করে।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com