বিএনপির মনোনয়ন ফরম নিলেন ২৩ জন

প্রকাশিত: ৯:১০ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১০, ২০২০

বিএনপির মনোনয়ন ফরম নিলেন ২৩ জন

সুরমা মেইল ডেস্ক ,

 

আসন্ন চারটি আসনের উপনির্বাচনের জন্য দলীয় প্রার্থী চূড়ান্ত করার প্রক্রিয়া হিসেবে বৃহস্পতিবার থেকে মনোনয়ন ফরম বিক্রি শুরু করেছে বিএনপি। প্রথম দিনে নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে ২৩ জন মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন। এর মধ্যে ঢাকা-১৮ আসনে ৭ জন, ঢাকা-৫ আসনে ৫ জন, সিরাজগঞ্জ-১ আসনে ৩ জন ও নওগাঁ-৬ আসনে ৮ জন।

 

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, চারটি উপনির্বাচনে ২৩ জন মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন। এদের মধ্যে তিনজন ফরম জমা দিয়েছেন। শুক্রবারও নয়াপল্টন কার্যালয়ে ফরম বিতরণ ও জমা নেয়া হবে। শনিবার গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে প্রার্থীদের সাক্ষাৎকার নেয়া হবে।

 

ঢাকা-১৮ আসনের জন্য দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন-ঢাকা মহানগর উত্তরের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কফিল উদ্দিন আহম্মেদ, যুবদলের মহানগর উত্তরের সভাপতি এসএম জাহাঙ্গীর হোসেন, তরুণ ব্যবসায়ী বাহাউদ্দিন সাদী, জাতীয়তাবাদী মুক্তিযোদ্ধা দলের সভাপতি ইশতিয়াক আজিজ উলফাত, মহানগর নেতা মোস্তফা জামান সেগুন, মো. আখতার হোসেন ও ইসমাইল হোসেন।

 

এছাড়া ঢাকা-৫ আসনের জন্য মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন- বিএনপির বাণিজ্যবিষয়ক সম্পাদক আলহাজ সালাহউদ্দিন আহমেদ, গণশিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক অধ্যক্ষ সেলিম ভূঁঁইয়া, বিএনপির ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সহ-সভাপতি নবী উল্লাহ নবী, মহানগর নেতা মো. জুম্মন মিয়া ও আকবর হোসেন নান্টু, নওগাঁ-৬ আসনে আবদুস শুকুর, এমএম ফারুক জেমস, মাহমুদুল আরেফিন স্বপন, এসহাক আলী, আতিকুর রহমান রতন মোল্লা, শেখ মো. রেজাউল ইসলাম, মো. শফিকুল ইসলাম ও আবু সাঈদ রফিকুল আলম রফিক, সিরাজগঞ্জ-১ আসনে বিএম তহবিবুল ইসলাম, নাজমুল হাসান তালুকদার রানা ও রবিউল হাসান।

 

মনোনয়ন প্রত্যাশীরা বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীর হাত থেকে এসব ফরম সংগ্রহ করেন। তারা ১০ হাজার টাকা মূল্যমানে ফরম সংগ্রহ করেন। ২৫ হাজার টাকা জামানতসহ জমা দিতে হবে। সকাল ১০টায় প্রথমে দলীয় নেতাকর্মী ও সমর্থকদের নিয়ে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন ঢাকা-১৮ আসনের বিএনপির মনোনয়নপ্রত্যাশী তরুণ ব্যবসায়ী বাহাউদ্দিন সাদি।

 

এ সময় তিনি সাংবাদিকদের বলেন, চলমান গণতান্ত্রিক আন্দোলন এবং দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করার অংশ হিসেবে বিএনপি নির্বাচনে যাচ্ছে। আরও একটা বিষয় হচ্ছে, দেশের মানুষ তো ভোট দেয়ার সুযোগ পাচ্ছে না। আর বিএনপি যদি নির্বাচনে অংশ না নেয় তাহলে তো দেশের মানুষ সেই অধিকারটুকুও হারাবে।

 

আশা করছি দল আমাকে মনোনয়ন দিয়ে ঢাকা-১৮ আসনের জনগণের কাজ করার সুযোগ দেবে। তিনি বলেন, নির্বাচন সুষ্ঠু হলে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া এবং ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে এ আসন উপহার দিতে পারব।

 

এর কিছুক্ষণ পর একই আসন থেকে যুবদলের উত্তরের সভাপতি এসএম জাহাঙ্গীর মহানগর উত্তরের বিভিন্ন থানার সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকসহ বিভিন্ন পর্যয়ের নেতাকর্মীদের নিয়ে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন। তিনি সাংবাদিকদের বলেন, আমার সঙ্গে তৃণমূল নেতাকর্মীরা আছেন। আমি সব সময়ে রাজপথে ছিলাম এবং আছি।

 

আমরা এ নির্বাচনকে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের আন্দোলন হিসেবে নিয়েছি। আমরা বিএনপি চেয়ারপারসন দেশনেত্রী খালেদা জিয়ার আহবান- দেশ বাচাঁও মানুষ বাঁচাও এ স্লোগানকে বাস্তবায়ন করব। সরকারের সব ষড়যন্ত্রকে মোকাবেলা করে নির্বাচনের শেষ পর্যন্ত মাঠে থাকব। নির্বাচনের ফলাফল নিয়ে ফিরব।

ঢাকা-৫ আসনে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহের পর নবীউল্লাহ নবী বলেন, নির্বাচনের প্রাথমিক প্রস্তুতি ইতোমধ্যেই সেরেছি। সেই ধারাবাহিকতায় এবার দলীয় ফরমও নিলাম। গত নির্বাচনের পর থেকে এখনও আমি মাঠেই আছি। অত্র এলাকার দলের বিভিন্ন অঙ্গ-সংগঠনকে নিয়ে সব সময়ই আমরা কার্যক্রম চালিয়ে আসছি।

 

করোনাকালেও থেমে ছিল না আমাদের কার্যক্রম। এ সময় ত্রাণবিষয়ক নানা কর্মকাণ্ডে নিয়োজিত ছিলাম। আশা করি, নির্বাচনে এর সুপ্রভাব পড়বে। এ আসনে জয়ের ব্যাপারে আমি দারুণ আশাবাদী। শেষ পর্যন্ত বিজয়ের হাসি আমরাই হাসব।

 

বৃহস্পতিবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী জানিয়েছেন, আমার স্বাক্ষর জাল করে জনৈক আলহাজ ফয়েজ আহমেদ লিটন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য হিসেবে মনোনয়ন পেয়েছেন বলে একটি মিথ্যা, বানোয়াট ও সম্পূর্ণরূপে জালিয়াতমূলক পত্র সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রকাশ হয়েছে। প্রকৃতপক্ষে তিনি একজন প্রতারক।

 

তিনি আমার স্বাক্ষর জাল করে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে চিঠিটি প্রকাশ করেছেন। এ বিষয়ে বিভ্রান্ত না হতে সংশ্লিষ্ট সবার প্রতি অনুরোধ জানান তিনি। শুক্রবার বিকাল ৫টা পর্যন্ত নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ ও জমা দেয়া যাবে।

 

শনিবার এ চারটি আসনের মনোনয়নপ্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার নেয়া হবে। ওই দিনই রাতে প্রার্থী চূড়ান্ত করবে দলীয় পার্লামেন্টারি বোর্ড। ঢাকা-৫ ও নওগাঁ-৬ আসনের ভোটগ্রহণ হবে ১৭ অক্টোবর। এছাড়া সিরাজগঞ্জ-১ ও ঢাকা-১৮ আসনে উপনির্বাচন হবে। তবে এ দুই আসনে এখনও তফসিল ঘোষণা হয়নি।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

Flag Counter

আমাদের ভিজিটর সংখ্যা

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com