ম্যাজিস্ট্রেটের কান্ড ! ছাগলের বিরুদ্ধে মামলা

প্রকাশিত: ৫:৫৯ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১০, ২০১৬

ম্যাজিস্ট্রেটের কান্ড ! ছাগলের বিরুদ্ধে মামলা

Chagol
আন্তর্জাতিক ডেস্ক : প্রথমবার ‘অপরাধ’ করার পর সতর্ক করা হয়েছিল। কিন্তু এরপরও থামেনি। ফলে থানায় অভিযোগ। আর পুলিশও গিয়ে গ্রেপ্তার করেছে তাকে। যাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে সেটি একটি ছাগল। এখন এর ভবিষ্যৎ নির্ভর করছে আদালতের ওপর। ভারতের ছত্তিশগড়ে কোরেয়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে। ছত্তিশগড়ের রাজধানী রায়পুর থেকে ৩৫০ কিলোমিটার দূরে কোরেয়ার অবস্থান। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি জানিয়েছে, গতকাল সোমবারের ওই ঘটনায় ছাগলের মালিক আবদুল হাসানকেও আটক করেছে পুলিশ। আজ মঙ্গলবার জামিন পেয়েছেন হাসান ও তাঁর ছাগল। জেলা ম্যাজিস্ট্রেটের বাড়ির মালি ওই ছাগলের বিরুদ্ধে পুলিশের কাছে অভিযোগ করেন। পুলিশের সহকারী উপপরিদর্শক আর পি শ্রীবাস্তব বলেন, ‘ওই বাংলো বাড়ির একটি লোহার গেট আছে। ছাগলটি তারপরেও লাফ দিয়ে ভেতরে প্রবেশ করে। বাড়ির পিয়ন কয়েকবারই এ ব্যাপারে ছাগলের মালিককে সতর্ক করেছেন। আজ মঙ্গলবার পিয়ন এ ব্যাপারে আমাদের কাছে অভিযোগ করেন। এ কারণে আমরা ছাগল ও ছাগলের মালিককে আটক করি।’ছাগলটির ‘অপরাধ’ হিসেবে লেখা হয়েছে, বাগানের ঘাস খেয়েছে, এমনকি বিভিন্ন চারাগাছ ও সবজি খেয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, ম্যাজিস্ট্রেট পুলিশের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তাদের ডেকে এ ‘অনিষ্টকারী’ ছাগলের বিরুদ্ধে অভিযোগ লিখতে বলেন। ছাগলের মালিক আবদুল হাসান ও তাঁর ছাগলের বিরুদ্ধে অনধিকার প্রবেশ ও অনিষ্ট করার অভিযোগ করা হয়েছে। এর সাজার মেয়াদ দুই থেকে সাত বছর পর্যন্ত। আবদুল হাসান বলেন, ‘আমার ছাগল দেয়ালের ওপার গিয়ে বাগানের ফুল ও সবজি খেয়েছিল। পরে ছাগলটিকে আটক করে থানায় নিয়ে যাওয়া হয় এবং পুলিশ আমাকেও নিয়ে আসে।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

Flag Counter

আমাদের ভিজিটর সংখ্যা

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com