ভারতে ফিরছে গোমাংস

প্রকাশিত: ২:১২ অপরাহ্ণ, মে ৭, ২০১৬

ভারতে ফিরছে গোমাংস

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ভারতে মহারাষ্ট্র সরকার গতবছর গরুর মাংস খাওয়া বা বিক্রি করার ওপর যে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছিল শুক্রবার মুম্বাই হাইকোর্ট তা খারিজ করে দিয়েছে। আদালতের এ সিদ্ধান্তকে অনেকেই স্বাগত জানিয়েছেন। এছাড়া এ পদক্ষেপকে হিন্দু চরমপন্থিদের ওপর শক্ত আঘাত হিসেবেও দেখা হচ্ছে।

শুক্রবার বিচারপতি অভয় ওকা এবং বিচারপতি সুরেশ গুপ্তের ডিভিশন বেঞ্চ এই রায় দেন। রায়ে বলা হয়েছে, কোনও নাগরিক কী খাবেন তা রাষ্ট্র ঠিক করে দিতে পারে না। তাই রাজ্যের বাইরে থেকে গোমাংস আনা, বহন করা, খাওয়া বা বিক্রি করার উপরে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিয়েছে বেঞ্চ। কিন্তু রাজ্যে গো-হত্যা নিষিদ্ধই রেখেছেন বিচারপতিরা। তবে মোষ হত্যার উপরে নিষেধাজ্ঞা নেই।

মহারাষ্ট্রে গো-হত্যা নিষিদ্ধ করা হয়েছিল ১৯৭৬ সালে। ২০১৫ সালে সেই নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ বাড়ায় রাজ্যের বিজেপি সরকার। সেই সঙ্গে নিষিদ্ধ হয় মহারাষ্ট্রে গোমাংস খাওয়া বা বিক্রি করাও। স্বভাবতই শুরু হয় বিতর্ক। হিন্দুত্বের রাজনীতি করতে গিয়ে দেবেন্দ্র ফডনাবীসের সরকার মানুষের মৌলিক অধিকারে হাত দিচ্ছে বলে দাবি করে বিভিন্ন শিবির। বিষয়টি নিয়ে বম্বে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন আইনজীবী হরীশ জাগতিয়ানি-সহ বেশ কয়েক জন। শুক্রবার সেই মামলারই রায় দিয়েছে বম্বে হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ। তারা আইনের ওই অংশটিকে ‘অসাংবিধানিক’ আখ্যা দিয়ে বাতিল করে দিয়েছে।

রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন আবেদনকারী হরীশ জাগতিয়ানি। তিনি বলেছেন, মুম্বাইয়ের রেস্তোরাঁয় ফিরছে গোমাংস। মানুষের মৌলিক অধিকার নিয়ে আমাদের বক্তব্য যে পুরোপুরি ঠিক তা মেনে নিয়েছে হাইকোর্ট। তবে হাইকোর্টের এই রায়ে ক্ষুব্ধ মহারাষ্ট্র সরকার। এ নিয়ে তারা সুপ্রিম কোর্টে যাবেন বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী দেবেন্দ্র ফডনাবীস।

এদিকে হাইকোর্টের এ রায়ে ইতিবাচক প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। এ নিয়ে টুইটারে একজন লিখেছেন, যাক, মুম্বাইয়ে গোমাংসের উপরে নিষেধাজ্ঞা তা হলে আংশিক ভাবে উঠল। অনেক দিন পরে একটা ভাল খবর পেলাম।

তবে অনেকে আবার আদালতের এই পরস্পর বিরোধী রায়ে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছেন। এ নিয়ে একজনের মন্তব্য, মহারাষ্ট্রে গো-হত্যা করা যাবে না। কিন্তু বাইরে থেকে আনা গোমাংস খাওয়া যাবে। এটা আবার কেমন রায়!

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com